বাস টার্মিনালে ধর্ষণের শিকার কিশোরী

খাগড়াছড়ি শহরের বাস টার্মিনাল এলাকায় এক কিশোরী (১৬) সংঘবদ্ধ ধর্ষণের শিকার হয়েছে বলে অভিযোগ করে মামলা হয়েছে।

শনিবার (৩জুলাই) ভোরে এ ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় পুলিশ বাসচালকের সহকারী মোঃ কামাল (২৯) ও মোঃ রফিক (২৪) নামের দুজনকে গ্রেপ্তার করেছে।

বাসচালকের সহকারী কামালের বাড়ি খাগড়াছড়ি জেলা সদরের উত্তর গঞ্জপাড়া এলাকায়। আর রফিকের বাড়ি হবিগঞ্জের মাধবপুরে।

কিশোরীর পরিবার সূত্রে জানাযায়, গতকাল শুক্রবার রাতে টেলিভিশন দেখা নিয়ে মা-বাবার সঙ্গে রাগারাগি হয় কিশোরীর। এক পর্যায়ে কিশোরী রাগ করে বাড়ি থেকে বের হয়ে যায়। শনিবার ভোরে সে বাস টার্মিনাল এলাকায় পৌঁছালে কামাল ও রফিক কিশোরীকে একটি বাসে তুলে নিয়ে ধর্ষণ করেন।

পরে মেয়েটি খাগড়াছড়ি সদর থানায় গিয়ে বিষয়টি জানায়। পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে দুজনকে আটক করে।

খাগড়াছড়ি বাস-মিনিবাস শ্রমিক ইউনিয়নের সদস্য রতন ত্রিপুরা বলেন, লকডাউনের কারণে বাসের চালক টার্মিনালে বাস রেখে বাড়িতে চলে গেছেন। চালকের সহকারী ও আরেকজন মিলে এই ঘটনা ঘটিয়েছে।

খাগড়াছড়ি সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোহাম্মদ রশিদ বলেন, এই কিশোরীর বাবা বাদী হয়ে খাগড়াছড়ি থানায় মামলা করেছেন। প্রথমে কিশোরীকে একটি বাসে নিয়ে যাওয়া হয়। কিশোরী চিৎকার করলে টার্মিনালের শেষের দিকে আরেকটি বাসে নিয়ে মেয়েটিকে ধর্ষণ করা হয়। বাস দুটি আলামত হিসেবে পুলিশ হেফাজতে নিয়ে আসা হয়েছে।

কিশোরীর স্বাস্থ্য পরীক্ষার জন্য হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে এবং মামলায় আটক দুজনকে গ্রেপ্তার দেখানো হয়েছে।

মন্তব্য লিখুন :