সাবালিয়া আদর্শ উচ্চ বিদ্যালয়ের অন্তরালে অনৈতিক কর্মকাণ্ডের অভিযোগ!

টাঙ্গাইল পৌর এলাকার ১৮নং ওয়ার্ড সাবালিয়া আদর্শ উচ্চ বিদ্যালয়ে অনৈতিক কর্মকাণ্ডের অভিযোগ উঠেছে। এলাকাবাসীর মাধ্যমে জানা যায়, দীর্ঘদিন যাবৎ আদর্শ উচ্চ বিদ্যালয়ের নতুন ভবন নির্মাণকে কেন্দ্র করে মাঝে মধ্যেই কেয়ার টেকার জিসানের কক্ষে উঠতি বয়সের ছেলে মেয়ের উপস্থিতি লক্ষ করা যায়।

শুক্রবার অনুমানিক ৩ ঘটিকার সময় আদর্শ উচ্চ বিদ্যালয়ের নির্মাণাধীন ভবনের কেয়ার টেকারের কক্ষে ছেলে মেয়ের উপস্থিতি লক্ষ করা যায়। সেই সময় স্থানীয় লোকজন সরাসরি তাদের কক্ষে দেখে সংবাদকর্মী সহ পুলিশ প্রশাসনকে অবগত করে বলে জানা যায়।

এক পর্যায়ে সংবাদকর্মী ঘটনাস্থলে গিয়ে সত্যতা পায় এবং তথ্য নিয়ে চলে আসে। পরবর্তীতে এলাকাবাসী মানবিক কারণে তাদের বুঝিয়ে ছেড়ে দেন।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক এলাকার স্থানীয় লোকজন বলেন, দীর্ঘ দিন যাবৎই কেয়ার টেকারের কক্ষে বহিরাগত ছেলে মেয়ের উপস্থিতি লক্ষ করা যায়। এতে করে এলাকার ভাবমূর্তি ক্ষুণ্ন হচ্ছে। যেহেতু সাথেই মসজিদ সরাসরি মানুষের নজর কাড়ে। 

এই বিষয়ে আদর্শ উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক ওবাইদুর রহমান কুরাইসির সাথে মুঠোফোনে যোগাযোগ করলে তিনি বলেন, এই বিষয় সম্পর্কে আমি জানি না, শুক্রবার স্কুল বন্ধ ছিলো। কিভাবে কি হয়েছে আমি জানি না।

এই বিষয় সম্পর্কে সরাসরি নির্মাণাধীন ভবনের ঠিকাদার প্রতিষ্ঠানের পক্ষ থেকে রাহাত সরকার বলেন, আমার বাবা এই প্রতিষ্ঠানের ঠিকাদারি কাজ করে আসছে। এখানে বহিরাগতদের প্রবেশ সম্পূর্ণ নিষেধ। কিভাবে কি ঘটেছে আমি জানি না। এখানে দায়িত্বপ্রাপ্ত কেয়ার টেকারই ভালো বলতে পারবে।

এই বিষয় সম্পর্কে টাঙ্গাইল সদর পুলিশ ফাড়ির ইনচার্জ আরিফ ফয়সলের সাথে মুঠোফোনে যােগাযােগ করলে তিনি বলেন, এই বিষয় সম্পর্কে তিনি অবগত না।

মন্তব্য লিখুন :


আরও পড়ুন