ধামরাইয়ে ৫'শতাধিক লেবু গাছ কেটে ফেললো দুর্বৃত্তরা

ঢাকার ধামরাইয়ের কৃষক ইদ্রীস আলী। দুই বছর আগে ৭০ শতাংশ জমিতে লেবু বাগান করেছিলেন। সেই জমিতে অন্যদের গরু চরাতে নিষেধ করায় হিংসার বশে কেটে ফেলা হয় তার ৫ শতাধিক লেবু গাছ।

মঙ্গলবার দুপুরে উপজেলার চৌহাট ইউনিয়নের পাড়াগ্রাম এলাকায় গিয়ে দেখা যায় লুটিয়ে পড়া লেবু গাছ।

গত বৃহস্পতিবার রাতে এ ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় রোববার (৩১ অক্টোবর) ধামরাই থানার কাওয়ালী পাড়া পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রে অভিযোগ দায়ের করা হয়।

অভিযুক্তরা হলেন, রশিদ, সালাম, মান্নান ও মিনহাজ। তারা সবাই উপজেলার চৌহাট ইউনিয়নের পাচলক্ষী গ্রামের বাসিন্দা।

ভুক্তভোগী কৃষক ইদ্রীস আলি বলেন, ৭০ শতাংশ জমিতে লেবু বাগান করেছিলাম। সেখানে রশিদ গরু খাওয়াতো। কয়েকদিন আগে তাকে বলছিলাম এখন লেবু ধরতেছে গরু খাওয়ালে গাছ নষ্ট হয়। তখন সে ক্ষেপে গিয়ে আমাকে ধমকায়। পরে সকালে এসে দেখি সব গাছ কেটে ফেলা হয়েছে।

তিনি বলেন, গাছগুলো পুরোপুরি ফলন দিলে বছরে অন্তত এক থেকে দেড় লাখ টাকা আয় হতো। এখন এতোদিন গাছ লাগানো, যত্ন করা সব বৃথায় গেলো। রশিদদের কারণে পুরোটা ক্ষতিগ্রস্ত হলাম আমি।

এ ঘটনায় জড়িতদের কঠোর শাস্তি দাবি করেন ক্ষতিগ্রস্ত ওই কৃষক।

এ বিষয়ে ধামরাই থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) ফয়েজ উদ্দীন বলেন, লেবু গাছ কাটার ঘটনায় লিখিত অভিযোগ পেয়েছি। এরপর ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে ক্ষতিগ্রস্ত কৃষক ও স্থানীয় মেম্বারের সঙ্গে কথা বলেছি। তারা বসে ঘটনাটি মীমাংসা করার কথা বলেছেন।

মন্তব্য লিখুন :