লঞ্চ ডুবিয়ে দেয়া ঘাতক জাহাজ জব্দ

নারায়ণগঞ্জের শীতলক্ষ্যা নদীতে সাবিত আল হাসান নামক লঞ্চ ডুবিয়ে দেয়ার ঘটনায় ঘাতক এসকেএল-৩ নামের কোস্টার কার্গো জাহাজটিকে জব্দ করা হয়েছে।

বৃহস্পতিবার (৮ এপ্রিল) জাহাজটিকে মুন্সিগঞ্জের গজারিয়া থেকে জব্দ করে কোস্ট গার্ড।

এ ঘটনায় জাহাজের ১৪ কর্মচারীকেও আটক করা হয়েছে। জাহাজসহ তাদের নৌ-পুলিশের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে।

নারায়ণগঞ্জ জেলা প্রশাসন থেকে জানানো হয়, পাগলা কোস্টগার্ড স্টেশনের সদস্যরা কার্গো জাহাজটিকে জব্দ করেছে। জাহাজটির রং পরিবর্তন করা হয়েছে যার ফলে জব্দ করতে বেগ পেতে হয়েছে।

উল্লেখ্য রবিবার (৪ এপ্রিল) বিকেল ৫টা ৫৬ মিনিটে নারায়ণগঞ্জ কেন্দ্রীয় লঞ্চ টার্মিনাল থেকে অর্ধশতাধিক যাত্রী নিয়ে সাবিত আল হাসান নামে লঞ্চটি  মুন্সিগঞ্জ লঞ্চ টার্মিনালের উদ্দেশে ছেড়ে যায়। সন্ধ্যা সাড়ে ৬টার দিকে শীতলক্ষ্যা নদীর কয়লাঘাট এলাকায় একটি কার্গো জাহাজের ধাক্কায় লঞ্চটি নদীতে তলিয়ে যায়। এ ঘটনায় এখন পর্যন্ত ৩৫ জনের মরদেহ উদ্ধার করা হয়।

এদিকে লঞ্চডুবির ঘটনায় ৩৪ যাত্রীকে হত্যার অভিযোগে মামলা দায়ের করেন বাংলাদেশ অভ্যন্তরীণ নৌপরিবহন কর্তৃপক্ষ (বিআইডব্লিউটিএ)।

মন্তব্য লিখুন :