পদত্যাগপত্রেও ‘বড় ভুল’ মুরাদের

ব্যক্তিগত কারণ দেখিয়ে মন্ত্রিসভা থেকে পদত্যাগের আবেদন করেছেন তথ্য প্রতিমন্ত্রী ডা. মুরাদ হাসান। তবে এ পদত্যাগপত্রেও ভুল করেছেন বিতর্কিত এ প্রতিমন্ত্রী।

মঙ্গলবার দুপুরে সাড়ে ১২টায় পদত্যাগপত্রে স্বাক্ষর করে তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রণালয়ে পাঠান প্রতিমন্ত্রী মুরাদ। যদিও তিনি নিজে সচিবালয়ে আসেননি।

মুরাদ হাসান ২০১৯ সালের ১৯ মে তথ্য মন্ত্রণালয়ে যোগদান করলেও পদত্যাগপত্রে উল্লেখ করেছেন ১৯ মে ২০২১! এ বিষয়টি সংশোধন করে আবার পদত্যাগপত্র লেখা হচ্ছে বলে সচিবালয় সূত্রে জানা গেছে।

প্রতিমন্ত্রীর পদ থেকে অব্যাহতি চেয়ে মুরাদ হাসান লেখেন, মাননীয় প্রধানমন্ত্রী, স্ব-শ্রদ্ধেয় সালাম নেবেন। মন্ত্রিপরিষদ বিভাগের গত ১৯ মে ২০২১ তারিখের স্মারকমূলে আমাকে তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রণালয়ের প্রতিমন্ত্রী হিসেবে দায়িত্ব দেওয়া হয়। আমি আজ ৭ ডিসেম্বর ২০২১ সাল থেকে ব্যক্তিগত কারণে স্বেচ্ছায় প্রতিমন্ত্রীর দায়িত্ব থেকে পদত্যাগ করতে ইচ্ছুক।

মন্তব্য লিখুন :