আরও ৪ দলকে বঙ্গভবনে আমন্ত্রণ

নির্বাচন কমিশন (ইসি) গঠন প্রক্রিয়ার অংশ হিসেবে আলোচনার জন্য দেশের আরও চারটি নিবন্ধিত রাজনৈতিক দলকে আমন্ত্রণ জানিয়েছেন রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ।

দলগুলো হচ্ছে- গণফোরাম, বিকল্পধারা বাংলাদেশ, গণতন্ত্র পার্টি এবং বাংলাদেশ কমিউনিস্ট পার্টি (সিপিবি)।

আগামী ২ জানুয়ারি সন্ধ্যা ৬টায় বঙ্গভবনে গণফোরামের সঙ্গে, একই দিন সন্ধ্যা ৭টায় বিকল্পধারা বাংলাদেশের সঙ্গে আলোচনায় বসবেন রাষ্ট্রপতি। পরদিন ৩ জানুয়ারি সন্ধ্যা ৬টায় গণতন্ত্রী পার্টি এবং একই দিন সন্ধ্যা ৭টায় সিপিবির সঙ্গে সংলাপে বসবেন রাষ্ট্রপতি আবদুল হামিদ।

ইসি গঠন প্রক্রিয়ার অংশ হিসেবে গত সোমবার থেকে রাজনৈতিক দলগুলোর সঙ্গে সংলাপ শুরু করেন রাষ্ট্রপ্রধান। প্রথম দিন এই সংলাপে অংশ নিতে বঙ্গভবনে যায় সংসদের প্রধান বিরোধী দল জাতীয় পার্টি। একদিন বিরতি দিয়ে বুধবার সংলাপে অংশ নেয় জাতীয় সমাজতান্ত্রিক দল-জাসদ। পর্যায়ক্রমে নিবন্ধিত সব দলই বঙ্গভবনে সংলাপে অংশ নেওয়ার আমন্ত্রণ পাবে বলে জানিয়েছে রাষ্ট্রপতির কার্যালয়।

প্রথমবার ২০১১ সালের ২২ ডিসেম্বর তৎকালীন রাষ্ট্রপতি প্রয়াত জিল্লুর রহমান বিএনপিসহ রাজনৈতিক দলগুলোকে সংলাপে ডাকেন। দ্বিতীয়বার ২০১৬ সালের ১৮ ডিসেম্বর থেকে রাজনৈতিক দলগুলোর সঙ্গে রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদের সংলাপ শুরু হয়, চলে ২০১৭ সালের ১৮ জানুয়ারি পর্যন্ত। বঙ্গভবনে পর্যায়ক্রমে মোট ৩১টি রাজনৈতিক দল এই সংলাপে অংশ নেয়।

উল্লেখ্য, বর্তমান প্রধান নির্বাচন কমিশনার (সিইসি) কেএম নুরুল হুদার নেতৃত্বাধীন পাঁচ সদস্যের নির্বাচন কমিশনের মেয়াদ শেষ হবে আগামী ১৪ ফেব্রুয়ারি। পরদিন নতুন কমিশন দায়িত্ব গ্রহণ করবে।

এর আগে রাষ্ট্রপতি ২০ জানুয়ারির মধ্যে নতুন সার্চ কমিটি গঠন করবেন। এই সার্চ কমিটি রাজনৈতিক দল, পেশাজীবী ও সুশীল সমাজের প্রতিনিধিসহ বিভিন্ন স্তরের ব্যক্তিবর্গের সঙ্গে আলাপ-আলোচনা করে নতুন কমিশন গঠনে সংক্ষিপ্ত তালিকা প্রস্তুত করবে। সার্চ কমিটি রাষ্ট্রপতির কাছে সিইসির জন্য দুইজন, চারজন নির্বাচন কমিশনারের জন্য ৮ জনের নাম প্রস্তাব করবে। পরে সার্চ কমিটির প্রস্তাবিত মোট ১০ জনের নামের তালিকা থেকে একজন সিইসি ও ৪ জন নির্বাচন কমিশনার চূড়ান্ত করবেন রাষ্ট্রপ্রধান।

মন্তব্য লিখুন :